বিজ্ঞানীদের আশঙ্কা টোঙ্গার পরিবেশ দীর্ঘমেয়াদি ক্ষতির মুখে পরেছে স্ত্রীকে গলা কেটে হত্যা করেছে স্বামী জাবিতে নারী শিক্ষার্থীদের নিয়ে শাবিপ্রবি ভিসির মন্তব্যের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও কুশপুত্তলিকা দাহ সাটুরিয়ায় গৃহবধূকে ধর্ষণচেষ্টার মামলায় গ্রেপ্তার-১ পূর্বাচলে হারিয়ে যাওয়া দুই যুবককে ৯৯৯ এর কলে উদ্ধার মানিকগঞ্জে মুক্তিযোদ্ধার বাড়িতে ডাকাতি!  ফুলপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় এক শিশু নিহত মানিকগঞ্জে ভুল চিকিৎসা দিয়ে কলেজ ছাত্রকে হত্যার অভিযোগ! সাটুরিয়ায় সাবেক চেয়ারম্যানের ভাই মাদকসহ আটক জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের রূপগঞ্জে গভীর রাতে ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানে আগুন

২ গারো তরুনীকে দলবেঁধে ধর্ষণের মামলায় গ্রেফতার ৬ 

ময়মনসিংহ জেলা প্রতিনিধি: ময়মনসিংহের হালুয়াঘাটে আদিবাসী দুই স্কুলছাত্রীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ মামলার মূল আসামি সোলায়মান হোসেন রিয়াদসহ ৬ জনকে অভিযান চালিয়ে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১৪’র একটি দল ও জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। গ্রেফতারকৃতরা হলেন, হালুয়াঘাট উপজেলার কাতলমারি গ্রামের শহিদুল ইসলামের ছেলে শরিফ মিয়া (২০), কাটাবাড়ি গ্রামের আব্দুল মতিনের ছেলে মিজানুর রহমান (২২), একই গ্রামের শহিদুল ইসলামের ছেলে আব্দুল হামিদ (১৯), কচুয়াকুড়া গ্রামের আব্দুল হামিদের ছেলে মিয়া হোসেন (২০) একই গ্রামের মফিজুল মিয়ার ছেলে রুকন মিয়া (২১)।

এদের মধ্যে এজাহারভুক্ত আসামি ৪ জন এবং তদন্তে সম্পৃক্ততা পাওয়ায় আব্দুল হামিদকে গ্রফতার করা হয়েছে। এছাড়াও শুক্রবার রাতে হালুয়াঘাট এলাকা থেকে প্রধান আসামি রিয়াদকে গ্রেফতার করে র‌্যাব-১৪। বিষয়টি নিশ্চিত করেন ময়মনসিংহ র‌্যাব-১৪’র অধিনায়ক উইং কমান্ডার মো. রোকনুজ্জামান।

পুলিশ সুপার মোহাঃ আহমারউজ্জামান পিপিএম-সেবা গণমাধ্যমকে বলেন, গত ৭ জানুয়ারি রোজ শুক্রবার রাতে ময়সনসিংহসহ দেশের বিভিন্ন জায়গায় অভিযান চালিয়ে দুই গারো তরুণীকে দলবেঁধে ধর্ষণের ঘটনায় ৫ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। জেলা গোয়েন্দা পুলিশের দুটি চৌকস টিম নানা তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে তাদের গ্রেফতার করে। তবে অচিরেই বাকিদের গ্রেফতার করা হবে। এলাকা ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গত ২৭শে ডিসেম্বর গাজীরভিটা ইউনিয়নের একটি গ্রামের বিয়ের অনুষ্ঠান শেষে মধ্যরাতে বাড়ি ফেরার পথে আকাশী গাছের বাগানে স্কুলে পড়ুুয়া দুই তরুণী ধর্ষণের শিকার হন।

ভারতীয় সীমান্তবর্তী গ্রামটিতে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনায় হতবিহ্বল হয়ে পড়ে আদিবাসীরা। পরে ২৯ ডিসেম্বর পুলিশ নির্যাতিতদের বাড়িতে গিয়ে থানায় মামলা করতে পরামর্শ দেয়। ওই রাতেই ধর্ষণের শিকার স্কুলছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে হালুয়াঘাট থানায় ১০ জনকে আসামী করে ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন।

মামলায় প্রধান আসামি করা হয় স্থানীয় প্রাক্তন ইউপি সদস্য আব্দুল মান্নানের ছেলে সোলায়মান হোসেন রিয়াদকে। এতে আরও আসামি করা হয়-কচুয়াকুড়া গ্রামের শহীদ মিয়ার ছেলে শরিফ (২০), আবদুল হামিদের ছেলে এজাহার হোসেন (২০), কাটাবাড়ি গ্রামের জামাল উদ্দিনের ছেলে রমজান আলী (২১), তালেব হোসেনের ছেলে কাউছার (২১) দুলাল মিয়ার ছেলে আছাদুল (১৯), মাহতাব উদ্দিনের ছেলে শরিফুল ইসলাম (২১), আবদুল মতিনের ছেলে মিজান (২২), মফিজুল ইসলামের ছেলে রুকন (২১) ও বকুল মিয়ার ছেলে মামুন (২০)।

ঘটনার পর থেকে অভিযুক্তদের গ্রেফতার ও ফাঁসির দাবিতে আন্দোলন করেন আদিবাসী ও স্কুলছাত্রীরা। ময়মনসিংহ ডিবি পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. সফিকুল ইসলাম বলেন, দুই গারো কিশোরী সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগে ৫ আসামিকে অভিযান চালিয়ে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ৮ জানুয়ারি রোজ শনিবার দুপুরে তাদের আদালতে সোপর্দ করা হবে।

খবরটি শেয়ার করুন....
© All rights reserved  2022 DesherGarjan
Design & Developed BY Subrata Sutradhar
%d bloggers like this: